পটুয়াখালীতে ছাত্রলীগ সম্পাদকের কব্জি কেটে দিল নিজ দলের কর্মী

নিজেদের মধ্যে অভ্যন্তরীণ কোন্দলের জের ধরে পটুয়াখালীর কলাপাড়ার মিঠাগঞ্জ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের যুগ্ম সম্পাদক রাকিবুল ইসলামের (২৫) ডান হাতের কব্জি কেটে ফেলার অভিযোগ উঠেছে একই দলের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে। এ সময় পাল্টা হামলায় স্বেচ্ছাসেবক লীগের কর্মী রায়হান জখম হয়েছেন।

গতকাল রাত ৯ টার দিকে উপজেলার তেগাছিয়া বাজারসংলগ্ন আজীমুদ্দি গ্রামের কালভার্ট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এ হামলায় আহত দুজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আহতরা হামলার জন্য একে অপর গ্রুপকে দায়ী করছে।

ঘটনায় আহত ছাত্রলীগ নেতা রাকিবুল জানান, তেগাছিয়া বাজার থেকে মোটরসাইকেলে করে বাসায় ফিরছিলেন তিনি। পথে আজীমুদ্দি কালভার্ট এলাকায় পৌঁছলে আগে থেকে দলবদ্ধভাবে অবস্থান নেওয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি তরিকুল ইসলাম ও তার ভাই রায়হানের নেতৃত্বে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা তার ওপর হামলা চালায়। এ সময় তরিকুল তার হাতের কব্জি কেটে ফেলে। মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে কুপিয়ে জখম করে।

কিন্তু রায়হান এ হামলার কথা অস্বীকার করে বলেন, তারা হামলা করেননি, রাকিবুল তাদের ওপর হামলা চালিয়ে তার দুই হাত কুপিয়ে জখম করে।

কলাপাড়া হাসপাতালে জরুরি বিভাগে দায়িত্বরত চিকিৎসক মাইনুল হোসেন বলেন, রাকিবুলের ডান হাতের কব্জি কেটে চামড়ার সঙ্গে ঝুলে আছে। এ ছাড়া মাথা ও পিঠে একাধিক কাটা চিহ্ন রয়েছে। অপর আহত রায়হানের দুহাতের কাটা চিহ্ন রয়েছে। দুজনকেই বরিশাল রেফার করা হয়েছে উন্নত চিকিৎসার জন্য।

কলাপাড়া থানার উপ পরিদর্শক আসাদুর রহমান জানান, তারা হামলার খবর পেয়ে হাসপাতালে গিয়ে আহতদের সঙ্গে কথা বলেছেন। এলাকায় আধিপত্য বিস্তার ও পূর্ব বিরোধ কেন্দ্র করে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, তারা দ্রুত অভিযান চালিয়ে হামলায় জড়িতদের গ্রেফতার নিশ্চিত করবে।

আরো পড়ুন পোস্ট করেছেন

Comments

লোড হচ্ছে...
শেয়ার হয়েছে